এইচআইভি, সমকামীদের হিরো এওয়ার্ডে চূড়ান্ত মনোনয়ন পেলেন ২১ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠান

29

সমকামী অধিকার আন্দোলন ও এইচআইভি আন্দোলনের ক্ষেত্রে অবদান রাখায় এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের ২১ জন ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের তালিকা চূড়ান্ত করা হয়েছে। আগামী ১২ই নভেম্বর রোববার এর মধ্য থেকে সেরাদের বেছে নেয়া হবে। চূড়ান্ত এ তালিকায় রয়েছেন বাংলাদেশে সমকামী আন্দোলনে জড়িত কর্মী, প্রকাশত ও সংগঠন জুলহাস মান্নান। গত বছর এপ্রিলে তাকে ঢাকায় নৃশংসভাবে হত্যা করা হয়। শেষ ধাপে যে বা যারা বিজয়ী হবেন তাদেরকে দেয়া হবে হিরো এওয়ার্ড। নভেম্বরে ব্যাংককে এ বিষয়ে একটি গালা অনুষ্ঠান হবে। তহবিল সংগ্রহের জন্য এ অনুষ্ঠান আয়োজন করা হবে। সেখান থেকে এ অঞ্চলে এইচআইভি ও সমকামী সম্প্রদায়ের কাজকে সম্মানিত করা হবে। প্রাথমিকবাবে বিভিন্ন দেশ থেকে সাড়ে তিন শতাধিক নমিনেশনের ভিতর থেকে সাতটি ক্যাটেগরিতে এ পুরস্কারের জন্য বাছাই করা হয়েছে মোট ২১ জনকে। ১২ই নভেম্বর এর গালা অনুষ্ঠান হবে পালম্যান ব্যাংকক কিং পাওয়ার হোটেলে। সেখানে প্রতিটি ক্যাটেগরি থেকে একজন বিজয়ীকে বাছাই করা হবে। আঞ্চলিকভাবে এইচআইভি ও এলজিবিটি সম্প্রদায়ের অধিকার নিয়ে কাজ করা একটি নেটওয়ার্ক হলো অ্যাপকম। তাদের দশম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী স্মরণে এই পুরস্কারের বিশেষ আয়োজন করা হচ্ছে। আশা করা হচ্ছে এই অনুষ্ঠান থেকে এইচআইভি শিক্ষা, প্রতিরোধ, চিকিৎসা, সেবা যত্ন ও মানবাধিকার বিষয়ে অ্যাপকমের গুরুত্বপূর্ণ কাজ করার জন্য অর্থ সংগ্রহ হবে। অ্যাপকমের নির্বাহী পরিচালক মিডনাইট পুনকাসেতওয়াত্তানা বলেছেন, এমন সব ব্যক্তিতে বাছাই করতে পেরে তারা অভিভ’ত। তবে কাজটি কছিন ছিল। প্রতিজন নমিনির কাজ স্মরণীয় বলেও মন্তব্য করেছেন তিনি। চূড়ান্ত পর্বের সাতটি ক্যাটেগরির মধ্যে রয়েছে কমিউনিটি হিরো। এ ক্যাটেগরিতে নির্বাচিত হয়েছেন তাইওয়ানের চি চিয়া-ওয়েই, বাংলাদেশের প্রয়াত জুলহাস মান্নান ও জাপানের ড. হিদেকি সুনাগাওয়া। ট্রান্সজেন্ডার হিরো ক্যাটেগরিতে রয়েছেন মালয়েশিয়ার খারতিনি স্লামাহ, ভারতের লক্ষী নারায়ণ ত্রিপাটি, টোঙ্গার হোলিন মাতায়েলে। এইচআইভি হিরো ক্যাটেগরিতে রয়েছেন ভারতের গৌতম যাদব, মালয়েশিয়ার অ্যানড্রিউ তান, শ্রীলঙ্কার পালিথা বিজয়াবান্দারা। সোশাল জাস্টিস ক্যাগেটরিতে আছেন পাকিস্তানের কাসিম ইকবাল, ইন্দোনেশিয়ার ইউলি রুস্তিনাওয়াতি, থাইল্যান্ডের এডমুন্ড সিটল। হেলথ অ্যান্ড ওয়েলবিং ক্যাটেগরিতে আছেন থাইল্যান্ডের ড. ফ্রিটস ভ্যান গ্রিয়েনসভেন, ফিলিপাইনের লাউরিনদো, ভারতের ড. অভিষেক রয়েল। কমিউনিটি অ্যালাই ক্যাটেগরিতে আছেন সিঙ্গাপুরের ড. ইয়াপ কিম হাও, থাইল্যান্ডের প্রাফান পানুপাক, ফিলিপাইনের পাইয়া উয়ুরটজব্যাচ। কমিউনিটি অর্গানাইজেশন ক্যাটেগরিতে আছে বাংলাদেশের বন্ধু সোশাল ওয়েলফেয়ার সোসাইটি, ভিয়েতনামের জি-লিঙ্ক, পাকিস্তানের ওয়াজুদ।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

সূত্র : মানবজমিন অনলাইন পত্রিকা