কলেজ ছাত্রী লোপার নির্যাতনের জন্য দায়ীদের গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন

52

পুলিশ স্বামী কর্তৃক নির্যাতনের শিকার কলেজ ছাত্রীর লোপার পক্ষে দাঁড়িয়ে মানববন্ধন করেছেন শেরপুরের বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন ও শিক্ষার্থীরা। আজ সোমবার সকালে শেরপুর জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশন, শেরপুর জেলা শাখা এই মানববন্ধনের আয়োজন করে।
সম্প্রতি শেরপুর জেলা শহরের কালিগঞ্জ মহল্লার আমিনুল ইসলামের মেয়ে শেরপুর সরকারী মহিলা কলেজের দ্বাদশ শ্রেণীর শিক্ষার্থী আশরাফুন্নাহার লতাকে যৌতুকের দাবীতে পিটিয়ে আহত করে তার স্বামী ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশে কর্মরত উপপরিদর্শক (এসআই) শাহিনুল ইসলাম। এ ব্যাপারে শাহিনুল ইসলামসহ ৬জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করা হয়। কিন্তু কোন আসামী গ্রেপ্তার না হবার প্রেক্ষিতে এই মানববন্ধনের উদ্যোগ নেয় বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশন, জনউদ্যোগসহ কয়েকটি সংগঠন।
মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন শেরপুর ডায়াবেটিক সমিতির সভাপতি সমাজসেবী রাজিয়া সামাদ, শেরপুর সরকারী কলেজের অধ্যাপক শিবশংকর কারুয়া, শেরপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি রফিকুল ইসলাম আধার, নির্যাতিতার নানা শিক্ষাবিদ মোহম্মদ আলী প্রমুখ।
বক্তারা অবিলম্বে লোপার নির্যাতনের সাথে জড়িতদের গ্রেপ্তার ও শাস্তি নিশ্চিত করার দাবী জানায়।