গাজীপুরে কিশোরের লাশ উদ্ধার, আটক ৩

28

গাজীপুরের কাশিমপুরের বাগবাড়ি এলাকায় নিখোঁজের ২৬ দিন পর এক কিশোরের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মরদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছে পুলিশ। এঘটনায় জড়িত সন্দেহে নিহতের সহোদরসহ তিনজনকে আটক করা হয়েছে।
নিহত সাইদুল ইসলাম সিটি করপোরেশনের শৈলডুবি এলাকার সিরাজুল ইসলামের ছেলে। আর আটককৃতরা হলেন, সাইদুল ইসলামের ভাই সাইফুল ইসলাম, মনির ও হাসান।
চক্রবর্তী পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ হারুন অর রশীদ জানান, মৃত সাইদুল ইসলাম কাশিমপুর এলাকায় নিষিদ্ধ ইয়াবা ট্যাবলেট বিক্রি করতো। সাইদুলের কাছে এক হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট আছে এমন তথ্য পেয়ে চলতি বছরের ৮ সেপ্টেম্বর  সাইদুলকে মোবাইল ফোনে বাগবাড়ি এলাকায় ডেকে নেয় অভিযুক্ত হাসান। পরে ইয়াবা ট্যাবলেট নিয়ে বাক বিতন্ডের জেরে সাইফুলকে ছুরিকাঘাত করে হত্যা করে মরদেহ ওই এলাকার জঙ্গলে ফেলে দেয় অভিযুক্তরা। এ ঘটনার দুইদিন পর নিহত সাইদুল ইসলামের খালাতো ভাই আবু বকর সিদ্দিক জয়দেবপুর থানায় ‘সাইদুল নিখোঁজ’ মর্মে একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। পুলিশ ঘটনার তদন্তে নেমে মোবাইল ফোন ট্র্যাক করে অভিযুক্ত হাসানকে আটক করে। পরে তার স্বীকারুক্তি মতে মঙ্গলবার রাতে বাগবাড়ি জঙ্গল থেকে সাইদুলের মরদেহ উদ্ধার ও অপর দুই অভিযুক্ত সাইফুল এবং মনিরকে আটক করা হয়। এ বিষয়ে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

[এমকে]

 

 

সূত্র : মানবজমিন অনলাইন পত্রিকা