চট্টগ্রাম আবাহনীকে রুখে দিলো সাইফ স্পোর্টিং

28

প্রিমিয়ার লীগে শীর্ষে থাকা চট্টগ্রাম আবাহনীকে রুখে দিয়েছে নবাগত দল সাইফ  স্পোর্টিং ক্লাব। একই ব্যক্তির অর্থায়নে গড়া দুই দলের ম্যাচটি শেষ হয়েছে গোলশূন্য ড্রয়ে। ড্র করলেও অজেয় থাকা চট্টগ্রাম আবাহনী ১০ ম্যাচে ২৬ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে। চতুর্থ স্থানে থাকা সাইফ স্পোর্টিংয়ের পয়েন্ট ১৯।
চট্টগ্রাম আবাহনীর ফুটবল কমিটির চেয়ারম্যান তরফদার রুহুল আমিন। তার অর্থায়নে দল গড়েছে চট্টগ্রাম আবাহনী। তরফরদার রুহুল আমিন আবার সাইফ স্পোর্টিংয় ক্লাবের চেয়ারম্যান। গতকাল বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে এই দুই দলের লড়াইয়ে প্রথম সুযোগটি পায় চট্টগ্রাম আবাহনী। ম্যাচের ১৮তম মিনিটে জাহিদ হোসেনের বাড়ানো বলে দুই ফরোয়ার্ড তৌহিদুল আলম সবুজ- আফিজ ওলাওলে ওলাডিপো দুজনে চেষ্টা করলেও কেউ নাগাল পাননি। ২৭তম মিনিটে সাইফ স্পোর্টিংয়ের রহমত মিয়ার নাম্বারের থ্রো ইনে এম্বের আর্লে ভালেন্সিয়া ছুটে এসেও নাগাল পাননি। আলতো টোকার দরকার ছিল বল জালে জড়াতে। ৩৮তম মিনিটে মতিন মিয়া ডি বঙের ভেতর বল নিয়ে ঢুকেও লক্ষ্যভ্রষ্ট শট নিলে আগের তিন ম্যাচ ড্র করা সাইফ স্পোর্টিংয়ের হতাশা আরো বাড়ে। প্রথমার্ধের শেষ দিকে এগিয়ে যাওয়ার ভালো সুযোগ থেকে চট্টগ্রাম আবাহনীকে বঞ্চিত করেন পাপ্পু হোসেন। ৪৪তম মিনিটে জাহিদের কর্নার বাঁক খেয়ে জালে ঢুকতে যাওয়ার আগ মুহূর্তে ফিস্ট করে ফেরান গোলরক্ষক। টানা তিন ম্যাচ জিতে আসা চট্টগ্রাম আবাহনীর দ্বিতীয়ার্ধে আক্রমণের ধার কমে। ৭৫তম মিনিটে ডি বঙের ভেতর ফাঁকায় বল পেলেও ভালেন্সিয়া সাইফ স্পোর্টিংকে কাঙ্ক্ষিত গোল এনে দিতে পারেননি। ৮৮তম মিনিটে সাইফ গোলবঞ্চিত হয়। ডান দিক থেকে আক্রমণে ওঠা ভালেন্সিয়ার শট গোলরক্ষককে ফাঁকি দেয়ার পর ক্রসবারে লেগে ফেরে। শেষ দিকে রেফারির সিদ্ধান্ত নিয়ে বাজে আচরণ করায় সাইফ স্পোর্টিংয়ের কোচ রায়ান নর্থমোর, টিম লিডার কিম টাইরন গ্রান্টকে মাঠ ছাড়তে হয়। ম্যাচ শেষে তর্ক করে হলুদ কার্ড পান দলটির অধিনায়ক জামাল ভুইয়া ও মিডফিল্ডার হেমন্ত ভিনস্টে বিশ্বাস।
এদিকে আবাহনীর সহকারী কোচ অমলেশ সেনের মৃত্যুতে আবাহনী লিমিটেড তিন দিনের শোক ঘোষণা করায় গতকাল তাদের সঙ্গে শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাবের ম্যাচটি পিছিয়ে দিয়েছে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন। আজ সন্ধ্যা ৭টায় হবে ম্যাচটি।