জোড়া অর্ধশতক নিয়ে আত্মবিশ্বাসী সাব্বির

34

প্রস্তুতি ম্যাচের উভয় ইনিংসে অর্ধশতকের কৃতিত্ব দেখালেন সাব্বির রহমান। আর দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সিরিজের প্রথম টেস্টে মাঠে নামার আগে গতকাল সাব্বির বলেন, আমি অতিবিশ্বাসী নই, তবে অবশ্যই আত্মবিশ্বাস বেড়েছে আমার। দক্ষিণ আফ্রিকা আমন্ত্রণমূলক একাদশের বিপক্ষে ম্যাচের তৃতীয় ও শেষদিনে গতকাল লাঞ্চের পর ২৩৫/৯ সংগ্রহ নিয়ে দ্বিতীয় ইনিংস ঘোষণা করেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মুশফিকুর রহীম। এ সময় ২২৮ রানে এগিয়ে ছিল বাংলাদেশ।
গতকাল ৬৭ রানের ইনিংস খেলেন সাব্বির রহমান। ছয় নম্বরে ব্যাট হাতে ৯৮ বলের ইনিংসে ৮টি বাউন্ডারি হাঁকান তিনি। প্রথম ইনিংসে ৫৮ রানে অপরাজিত থাকেন সাব্বির। আর গতকাল সাব্বির বলেন, প্রস্তুতি ম্যাচে জোড়া সেঞ্চুরি নিয়ে আত্মবিশ্বাস বেড়েছে আমার। তবে আমি অতি আত্মবিশ্বাসী নই। টি-টোয়েন্টি হোক অথবা টেস্ট, আমি রানের জন্য খেলি। এজন্য আমার খেলার ধরন পরিবর্তন করতে চাই না। ছয় বা সাত নম্বরে ব্যাটিং করলে স্ট্রোক খেলতেই হয়। আগের দিনের ৬/০ সংগ্রহ নিয়ে গতকাল বেশিদূর যেতে পারেননি লিটন কুমার দাস। সৌম্য সরকারের ইনজুরিতে ওপেনিংয়ে ব্যাট হাতে সুযোগ পান লিটন। তবে ব্যক্তিগত ২ রানে উইকেট খোয়ান তিনি। প্রথম ইনিংসে ডাক মেরেছিলেন বাংলাদেশের এ উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান। তামিম ইকবালের ইনজুরিতে ওপেনিংয়ে প্রমোশন নিয়ে অর্ধশতকের দেখা পেলেন ইমরুল কায়েস। গতকাল নিজের উইকেট দেয়ার আগে মারকুটে ইনিংসে ৫৪ বলে ৫১ রান করেন ইমরুল। এতে তিনি হাঁকান ৭টি চার ও একটি ছক্কা। ওয়ানডাউন ব্যাটসম্যান মুমিনুল হক করেন ৩৮ বলে ৩৩ রান। তবে দ্বিতীয় ইনিংসেও রান পাননি বাংলাদেশের অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। প্রথম ইনিংসে ‘গোল্ডেন ডাক‘ মারেন তিনি। আর গতকাল উইকেট খোয়ান ব্যক্তিগত ১৫ রানে। প্রস্তুতি ম্যাচের শুরুতে ৩০৬/৭ সংগ্রহ নিয়ে প্রথম ইনিংস ঘোষণা করেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মুশফিকুর রহীম। ব্যাট হাতে অর্ধশতক হাঁকান মুশফিক (৬৩), মুমিনুল (৬৮) ও সাব্বির (৫৮*)। জবাবে বল হাতে দলীয় ১১০ রানে স্বাগতিক দলের শীর্ষ পাঁচ ব্যটসম্যানকে সাজঘরে ফেরান টাইগার বোলাররা। তবে শেষে খেই হারান তারা। আর লোয়ার অর্ডার ব্যাটসম্যানদের কৃতিত্বে প্রথম ইনিংসে স্বাগতিক দলের সংগ্রহ দাঁড়ায় ৩১৩/৮ ডি.।
সংক্ষিপ্ত স্কোর
টস: বাংলাদেশ, ব্যাটিং
বাংলাদেশ: ৩০৬/৭ ডি. ও ২৩৫/৯ ডি. (লিটন ২, ইমরুল ৫১, মুুমিনুল ৩৩, মুশফিক ৩, মাহমুদুল্লাহ ১৫, সাব্বির ৬৭, মিরাজ ১৪, তাইজুল ১৪, শফিউল ০, তাসকিন ১৫, শুভাশিষ শুভাশিষ ৩)।