নতুন শর্তারোপে পারমাণবিক কর্মসূচি আরো গতিশীল হবে: পিয়ংইয়ং

30

উত্তর কোরিয়ার ওপর কঠিন কোনো শর্তারোপ দেশটির পারমাণবিক কর্মসূচিকে আরো গতিশীল করবে বলে জানিয়েছে পিয়ংইয়ং। সোমবার উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা কেসিএনএ-তে প্রকাশিত এক বিবৃতিতে এ কথা জানানো হয়। কিম জং উন সরকারের ওপর সর্বোচ্চ চাপ প্রয়োগ করার ব্যাপারে চীন ও যুক্তরাষ্ট্রের নেতারা ঐকমত্যে পৌঁছানোর পর এ বিবৃতি দিল দেশটি। বিবৃতিতে বলা হয়, উত্তর কোরিয়ার ওপর শর্তারোপ ও চাপ প্রয়োগ করতে যুক্তরাষ্ট্র ও এর অধীন দেশগুলোর অধিক বাড়াবাড়ি, রাষ্ট্রীয় পারমাণবিক শক্তির চূড়ান্ত সক্ষমতার দিকে আমাদের পদক্ষেপকে আরো গতিশীল করবে। গত সপ্তাহে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ উত্তর কোরিয়ার পারমাণবিক ও ব্যাপক বিধ্বংসী ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচির ওপর নতুন করে শর্তারোপ করেছে। এ শর্তারোপের মাধ্যমে পিয়ংইয়ংয়ের আয়ের উৎস কমানোর চেষ্টা করা হয়েছে। এতে দেশটির টেক্সটাইল শিল্প রপ্তানির ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে, বাইরের দেশগুলোতে উত্তর কোরীয় নাগরিকদের কাজের সুযোগ স্থগিত করা হয়েছে ও দেশটিতে তেল সরবরাহ সীমিত করা হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, নতুন শর্তারোপের ফলে উত্তর কোরিয়ার বার্ষিক রপ্তানি রাজস্ব ৩ বিলিয়ন ডলারের থেকে ১ বিলিয়ন ডলার কমে যাবে। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিকে উদ্ধৃত করে কেসিএনএ জানিয়েছে, এ ধরনের অর্থনৈতিক বিধি-নিষেধ উত্তর কোরিয়ার জনগণকে ধ্বংস করার জন্য একটি শত্রুতামূলক কাজ। অথচ যুক্তরাষ্ট্র দাবি করছে, সংকটের শান্তিপূর্ণ সমাধানের জন্য এসব শর্তারোপ ও চাপ প্রয়োগ করা হচ্ছে। এদিকে, সোমবার যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জেমস ম্যাটিস উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার ব্যাপারে বলেছেন, এসব ক্ষেপণাস্ত্র আমাদের (যুক্তরাষ্ট্র ও এর মিত্ররা) কারো জন্য সরাসরি হুমকি না।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

সূত্র : মানবজমিন অনলাইন পত্রিকা