বরগুনায় হত্যা মামলায় সাত জনের যাবজ্জীবন

32

বরগুনার বেতাগী উপজেলার চরখালী গ্রামের কৃষক কবির হত্যা মামলায় ১২ আসামীর মধ্যে ৭ জনের যাবজ্জীবন কারাদ- ও বিশ হাজার টাকা জরিমানার নির্দেশ দিয়েছে আদালত। মামলার অপর পাঁচ আসামীকে খালাস প্রদান করা হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে বরগুনার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. আবু তাহের এ আদেশ দেন।
যাবজ্জীবন দ- প্রাপ্তরা হলেন, বরগুনার বেতাগী উপজেলার বুড়ামজুমদার ইউনিয়নের গেরামর্দন গ্রামের আবদুল জলীল, মো. মনির হোসেন, মো. রহিম, মো. মজিবর হোসেন, মো. রুহুল আমীন সিকদার, মো. সত্তার ও মো. জলীল মীর। একই সাথে তাদের প্রত্যেককে ২০ হাজার টাকা করে জরিমানাও করেছে আদালত। অনাদায়ে আরো ছয় মাসের কারাদন্ডের নির্দেশ দেয়া হয়েছে। দন্ডপ্রাপ্ত আসামীদের মধ্যে মো. জলীল মীর পলাতক রয়েছেন। মামলায় খালাস পেয়েছেন মো. আজীজ খান, মো. সোহবরাব খান, মো. সোমেদ আলী, মো. শহিদ সিকদার এবং লাইলী বেগমকে বেকসুর খালাস প্রাদান করা হয়েছে।
মামলা সূত্রে জানা যায়, ২০০৫ সালের ২রা ডিসেম্বর জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে গেরামর্দন গ্রামের মো. কবীর হোসেনকে কুপিয়ে হত্যা করে আসামীরা। পরে এ ঘটনায় তার স্ত্রী ছফুরা বেগম বাদী হয়ে ১২ জনকে আসামী করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। দীর্ঘ দিনের বিচার কার্যের পর বৃহস্পতিবার রা দিলেন আদালত। মামলায় রাষ্ট্র পক্ষের আইনজীবী বরগুনার পাবলিক প্রসিকিউটর এ্যাভোকেট ভুবন চন্দ্র হালদার বলেন, এ রায়ে আমরা সন্তুষ্ট নই। উচ্চ আদালতে এ রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করা হবে। অন্যদিকে, আসামী পক্ষের আইনজীবী এ্যাডভোকেট মো. নিজাম উদ্দীন আহমেদ বলেন, আমার মক্কেলগণ ন্যায় বিচার পাননি। তাই তারাও উচ্চ আদালতে আপিল করবেন।