বিসর্জনে শেষ হলো দুর্গোৎসব

33

প্রতিমা বিসর্জনের মধ্য দিয়ে শেষ হলো সনাতন ধর্মাবলম্বীদের শারদীয় দুর্গোৎসব। শোভাযাত্রা আর আবির খেলার মধ্য দিয়ে দেবী দুর্গাকে বিসর্জন দিয়েছেন ভক্তরা। গতকাল সকাল থেকেই মণ্ডপে মণ্ডপে ছিল উৎসবের আমেজ। সকালে বিজয়া দশমীতে ‘বিহিত পূজা’ আর ‘দর্পণ
বিসর্জনে’ দুর্গাপূজার শাস্ত্রীয় সমাপ্তি হয়। সনাতন ধর্মের বিশ্বাস অনুযায়ী, মহালয়ার দিন ‘কন্যারূপে’ ধরায় আসেন দশভূজা দেবী; বিসর্জনের মধ্য দিয়ে তাকে এক বছরের জন্য বিদায় জানানো হয়। বিকাল পৌনে ৪টার দিকে রাজধানীর ঢাকেশ্বরী মন্দির থেকে বিজয়া দশমীর উৎসবের র‌্যালি বের হয়। র‌্যালিটি সদরঘাটের ওয়াইজঘাটে গিয়ে শেষ হয়। র‌্যালি ঘিরে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কড়া নিরাপত্তা ছিল। এসময় ঢাক, ঢোল, কাঁসর আর ভক্তদের উলুধ্বনিতে মুখরিত হয় ঢাকার সড়কগুলো। প্রতিমা ঘাটে নিয়ে আসার পর ধূপ ধুনো দিয়ে আরতিতে মেতে ওঠেন ভক্তরা। পুরোহিতের মন্ত্রপাঠের মাধ্যমে দেবীকে বিসর্জনের জন্য নৌকায় তুলে দেয়া হয়। দেবী দুর্গা এবার মর্ত্যলোকে এসেছিলেন নৌকায় চড়ে আর বিদায় নিলেন ঘোড়ায় চড়ে। গতকাল বিসর্জনের দিনে সারা দেশে ছিল বৃষ্টি। বৃষ্টি উপেক্ষা করে সকাল থেকে মণ্ডপে মণ্ডপে ভিড় করেন ভক্তরা। বিকালে বৃষ্টিতে ভিজেই বিসর্জনের র‌্যালিতে অংশ নেন তারা।
সারা দেশে এবার ৩০ হাজার ৭৭টি মণ্ডপে পূজা হয়েছে। গত বছর এ সংখ্যা ছিল ২৯ হাজার ৩৯৫টি। রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশের পূজামণ্ডপের নিরাপত্তায় পুলিশ, আনসার, বিজিবি, র‌্যাবসহ অন্যান্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা দায়িত্ব পালন করেন। কড়া নিরাপত্তার কারণে কোথাও বড় ধরনের কোন অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি।