লকডাউনে কঠোর শ্রীবরদী উপজেলা প্রশাসন

153

তাসলিম কবির বাবু : করোনা ভাইরাসের বিস্তার রোধকল্পে সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক লকডাউন কার্যকর করতে কঠোর অবস্থানে শ্রীবরদী উপজেলা প্রশাসন। প্রশাসনের কঠোরতায় শ্রীবরদী উপজেলাতে লকডাউনের প্রথম দিনে বাজারের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানসহ পথচারী ও বাজারে আগত লোকজন স্বাস্থ্যবিধি মেনে কার্যক্রম পরিচালনা করে। ১ জুলাই বৃহস্পতিবার দিনব্যাপী উপজেলা প্রশাসন বিভিন্ন হাট-বাজার, দোকানপাঠ কঠোরভাবে তদারকি করেন। লকডাউনের প্রথম দিনে বাজারে তুলনামূলকভাবে মানুষের উপস্থিতি কম ছিল। কাঁচা বাজার ও নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের দোকান ব্যতিত অন্যান্য ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ক্রেতার সংখ্যা খুবই কম ছিল। অন্যান্য দিনের তুলনায় অনেককেই মাস্ক পরিধান করে বাজারে কেনাকাটা করতে দেখা গেছে।

সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক মানুষকে ঘরে রাখতে ও স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করতে উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নিলুফা আক্তার নিরলসভাবে কাজ করছেন। এতে সার্বিকভাবে সহযোগিতা করছেন সহকারি কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আতাউর রহমান সহ  পুলিশ প্রশাসন, বিজিবি ও স্থানীয় গণমাধ্যমকর্মী।

এসময় ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে ৭টি মামলায় ৩ হাজার ২ শত টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। এছাড়াও বৃহস্পতিবার রাতে পৌরসভা, মাটিয়াকুড়া, তেনাচিরা, কুরুয়া বাজার সহ বিভিন্ন এলাকা পরিদর্শন এবং সচেতনতার লক্ষে বিভিন্ন নির্দেশনা প্রদান করা হয়। সেনাবাহিনী, পুলিশ, বিজিবি, গ্রাম পুলিশ সহ জনপ্রতিনিধিগণ সার্বক্ষণিকভাবে সহযোগিতা করছে।

অপরদিকে শ্রীবরদী থানা অফিসার ইনচার্জ বিপ্লব কুমার বিশ^াসের নেতৃত্বে সঙ্গীয় পুলিশ ফোর্স শ্রীবরদী পৌর বাজার সহ বিভিন্ন বাজারে স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করতে সচেতনতামূলক কার্যক্রম ও মাস্ক বিতরণ করেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নিলুফা আক্তার বলেন, ১ থেকে ৭ জুলাই পর্যন্ত মানুষকে ঘরে রাখতে, সামাজিক দূরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করতে কঠোর অবস্থানে উপজেলা প্রশাসন। প্রতিদিন ৩ জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে পর্যায়ক্রমে সকল ইউনিয়নের বাজার ও গণজমায়েত স্থানে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হবে। পাশাপাশি মানবিক বিষয়গুলো বিবেচনা করা হচ্ছে। তিনি আরো বলেন, কোভিড-১৯ সংক্রমণ রোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে সকল শ্রেণি পেশার লোকজনকে সহযোগিতা করতে হবে। এসময় তিনি সকলকে সরকারি নির্দেশনা মেনে চলার পরামর্শ প্রদান করেন। জনস্বার্থে আমাদের  এ অভিযান অব্যাহত থাকবে।

Advertisement
Print Friendly, PDF & Email
sadi