শেরপুরে বাড়ির সীমানাকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় এক বৃদ্ধ নিহত ॥ আহত ২ ॥ আটক ৯

169

জিএইচ হান্নান : শেরপুরের পল্লীতে বাড়ির সীমানা নিয়ে বিরোধকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় মো. নাজির আলী ওরফে বদন (৬০) নামে এক বৃদ্ধ নিহত হয়েছেন। হামলায় নাজিরের ছেলে মোশারফ হোসেন (৩৫) ও প্রতিবেশী আল আমিনের ছেলে মনির হোসেন (২৫) আহত হয়েছেন। তাঁদের সবার বাড়ি সদর উপজেলার ভাতশালা ইউনিয়নের হাওড়া নিজ গ্রামে। আহতদের শেরপুর জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ১১ জুন শুক্রবার সকাল সাড়ে ৮টায় সদর উপজেলার হাওড়া নিজ গ্রামে হামলার এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে বাড়ির সীমানা নিয়ে সদর উপজেলার হাওড়া নিজ গ্রামের নাজির আলীর সঙ্গে প্রতিবেশী জমসেদ আলীর বিরোধ চলে আসছিল। এর জের ধরে শুক্রবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে বিরোধপূর্ণ সীমানায় গোবর ফেলা নিয়ে জমসেদের ছেলে তোরমান আলীর সঙ্গে নাজির আলীর বাগবিতণ্ডা হয়। এক পর্যায়ে জমসেদ আলীর নেতৃত্বে তাঁর ছেলে তোরমান আলী, লোকমান, হুরমান ও হিরনসহ ১০/১২ জন লোক সংঘবদ্ধ হয়ে দেশিয় ধারালো অস্ত্র নিয়ে নাজির আলীর ওপর হামলা চালায়। এতে নাজির আলী ঘটনাস্থলেই মারা যান। এসময় বাধা দিতে গিয়ে প্রতিপক্ষের হামলায় নাজিরের ছেলে মোশারফ হোসেন ও প্রতিবেশী মনির হোসেন গুরুতর আহত হন। সংবাদ পেয়ে সদর থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

এব্যাপারে পরিদর্শক (তদন্ত) বন্দে আলী মিয়া বলেন, এ ঘটনায় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ প্রক্রিয়াধীন। নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য শেরপুর জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার সন্দেহে ৯ জনকে আটক করা হয়েছে।