শেরপুরে ভ্রাম্যমাণ আদালতে দুই মাদক সেবীর কারাদণ্ড

306

জিএইচ হান্নান : শেরপুর জেলা প্রশাসন ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর মাদক বিরোধী যৌথ অভিযান চালিয়ে ১৩ সেপ্টেম্বর সোমবার সকাল ১১টার দিকে শেরপুর জেলা শহরের পৌরসভার চাঁপাতলী মহল্লা থেকে গাঁজা সেবন অবস্থায় ও গাঁজার পুড়িয়াসহ মোঃ সাদা মিয়া (৩৮) এবং মোঃ জনি মিয়া (২০) নামে দুই মাদক সেবীকে আটক করে। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালত প্রত্যেককে ৪ মাস করে বিনাশ্রম কারাদণ্ড। এছাড়াও প্রত্যেককে ৫০০ টাকা করে জরিমান এবং অনাদায়ে আরো ৩ দিনের কারাদণ্ডাদেশ প্রদান করা হয়েছে।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- মোঃ সাদা মিয়া শেরপুর পৌরসভার চাপাতলী মহল্লার মৃত নুরুল হোসেনের ছেলে ও মোঃ জনি মিয়া একই মহল্লার মৃত হারুন অর রশিদের ছেলে।

ভ্রাম্যমাণ আদালত সূত্রে জানা গেছে, শেরপুর জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের নেজারত ডেপুটি কালেক্টর (এনডিসি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ মিজানুর রহমান, সহকারি কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ডিএম সাদিক আল শাফিন, শেরপুরের মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের পরিদর্শক মোঃ এনামুল হকের নেতৃত্বে জেলা শহরের চাপাতলী মহল্লায় সোমবার সকালে মাদক বিরোধী ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান পরিচালনা করেন। এসময় মাদক সেবন অবস্থায় মাদক সেবী মোঃ সাদা মিয়া ও মোঃ জনি মিয়াকে গাঁজার পুড়িয়াসহ আটক করা হয়।

এঘটনায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ মিজানুর রহমান, সহকারি কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ডিএম সাদিক আল শাফিন মাদক সেবী মোঃ সাদা মিয়া ও মোঃ জনি মিয়াকে ২০১৮ সালের মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে দোষী সাব্যস্থ করে প্রত্যেককে ৪ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড ও প্রত্যেককে ৫০০ টাকা করে জরিমানা এবং অনাদায়ে আরো ৩ দিনের কারাদণ্ডাদেশ প্রদান করেছেন।

ভ্রাম্যমাণ আদালতে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের পরিদর্শক (এসআই) মোস্তাফিজুর রহমান, জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের পেশকার দুলাল উদ্দিনসহ মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের সঙ্গীয় ফোর্স উপস্থিত ছিলেন। পরে দণ্ডিত মোঃ সাদা মিয়া ও মোঃ জনি মিয়াকে শেরপুর জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়।

Advertisement
Print Friendly, PDF & Email
sadi