শেরপুর বাস চাপায় মটর সাইকেল আরোহী শিক্ষকের মৃত্যু

49

জিএইচ হান্নান: শেরপুর জেলার সদর উপজেলার শেরপুর-ঝিনাইগাতী সড়কের পৌরসভার শেষ সীমানা সংলগ্ন তাতালপুর বাজারে রোববার বিকেল ৫ টার দিকে ঢাকা জ-৫৬১৩ যুথী জেরিন পরিবহণ বাসের চাপায় মটর সাইকেল আরোহী মোঃ ফারুক আহম্মেদ (৩৫) নামে এক শিক্ষক মারা গেছে।

পুলিশ ও হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, ঝিনাইগাতী উপজেলার কাংশা ইউনিয়নের কারাগাঁও গ্রামের বাসিন্দা জনৈক হাজী নূরমোহাম্মদ এর ছেলে ফারুক আহম্মেদ ঝিনাইগাতী সদর ইউনিয়নের সালধা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক শেরপুর পৌর শহরের গোপালবাড়ী বাসা থেকে প্রতিদিনের মত তার মটর সাইকেল যোগে বিদ্যালয়ের শিক্ষকতা করতেন। ওইদিন বিকেলে বিদ্যালয় ছুটি শেষে মটর সাইকেল যোগে শহরের বাড়ী ফেরার পথে তাতালপুর বাজার পৌছা মাত্র বিপরীত দিক থেকে আসা ঝিনাইগাতীগামী বাসটি তার মটর সাইকেলটিকে চাপা দেয়। এ সময় বাসের চাকায় পিষ্ট হয়ে শিক্ষক ফারুক আহম্মেদ গুরুত্বর আহত হয়। পরে তাকে এলাকাবাসী উদ্ধার করে শেরপুর জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে। তার পরিবার সূত্রে জানা গেছে ফারুক আহাম্মেদ ৮ বছর ধরে সালধা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহাকারী শিক্ষক হিসাবে চাকুরী করে আসছিলেন। তার ১ বছরের একটি ছেলে সন্তান রয়েছে। ফারুক আহাম্মেদ এর অকাল মৃত্যুর খবর পেয়ে শেরপুর পৌরসভার মেয়র আলহাজ্ব গোলাম মোঃ কিবরিয়া লিটনসহ শুভাকাংখীরা হাসপাতালে ছুটে যান। এ সময় হাসপাতালে এক হৃদয় বিদারক সৃষ্টি হয়।