সরব তৌসিফ

39

বর্তমানে ছোট পর্দায় বেশ সরব চলতি সময়ের আলোচিত টিভি অভিনেতা তৌসিফ মাহবুব। ধারাবাহিকভাবে গত কয়েক বছর তার অভিনীত বেশকিছু নাটক দর্শকপ্রিয়তা পেয়েছে। নাটকের পাশাপাশি কাজ করছেন শর্টফিল্মেও। সব মিলিয়ে দিনকাল কেমন যাচ্ছে জানতে চাইলে তৌসিফ বলেন, বেশ ভালো। অভিনয় করতে করতে সময় চলে যায়। গত ঈদে বেশ কিছু নাটকে কাজ করেছেন। সাড়া কেমন মিলেছে? তৌসিফ বলেন, দু’টি নাটকে খুব সাড়া পেয়েছি। একটি শিহাব শাহিন পরিচালিত ‘এক্স ফ্যাক্টর রিলোড’ আর অন্যটি হলো সায়েদুর রহমান রাসেলের পরিচালনায় ‘সোনার বরণী কইন্যা’ যেটি ময়মনসিংহ গীতিকার ‘মহুয়া সুন্দরী’ পালা অবলম্বনে নির্মিত। বলতে গেলে প্রত্যাশার চেয়ে বেশি সাড়া আমি পেয়েছি। এখনকার ব্যস্ততা কি নিয়ে? জবাবে তৌসিফ বলেন, অবশ্যই নাটক নিয়ে। সম্প্রতি আমি বেশকিছু নতুন নাটকে অভিনয় করেছি যেগুলো সামনের ঈদে প্রচার হবে। এর মধ্যে কিছু চমকও থাকছে। আমি এবার ভেবেছিলাম বেছে বেছে ৮ ধরনের চরিত্রে অভিনয় করবো। যার প্রত্যেকটিতেই কাজ করার সুযোগ এসেছে। ইতিমধ্যে এসবের দু’টি চরিত্রে অভিনয়ও করেছি। এর মধ্যে একটি হচ্ছে ‘প্রেম’। শ্রাবণী ফেরদৌসের পরিচালনায় নাটকটিতে আমার বিপরীতে রয়েছেন সোহানা সাবা। এখানে আমি বোবা ও বধির চরিত্রে অভিনয় করেছি। অপর নাটকটি হচ্ছে ‘মিলেনিয়াম ফ্রম বরিশাল’। ইমরুল রাফাতের রচনায় সজীব খানের পরিচালনায় নাটকটিতে আমার বিপরীতে অভিনয় করেছেন সাফা কবির। যেখানে আমি বরিশালের একজন পয়সাওয়ালা খ্যাত। আমার টাকা আছে, কিন্তু স্ট্যাটাস বোঝার ক্ষমতা নেই। এমন একটি ভিন্ন ধরনের চরিত্রে আমি অভিনয় করেছি। এছাড়া আমি কাজ করেছি ‘অজান্তে’ শীর্ষক একটি নাটকে। এই নাটকে আমার বিপরীতে ছিলেন নাদিয়া নদী। এদিকে আগামী ৫ই আগস্ট পর্যন্ত একটি ধারাবাহিক নাটক নিয়ে ব্যস্ত থাকবো। নাম ‘ক্যান্ডি ক্র্যাশ’। রেদোয়ান রনির পরিচালনায় এটি নাগরিক টিভিতে সমপ্রচার হবে। এরপর থেকে টানা ঈদের কাজ করবো। এ পর্যন্ত অনেক নাটকে তো অভিনয় করেছেন। সে অভিজ্ঞতা থেকে বলুন এখনকার নাটকের মান কেমন মনে হচ্ছে? তৌসিফ বলেন, আমি অনেক বেছে কাজ করছি। তবে আমার নাটক যদি আমার ফ্যামিলি না দেখে তাহলে তার কোনো মূল্য থাকে না। আসলে নাটকের মান এখন অনেক খারাপ। সস্তা বাজেট, স্বল্প সময়ে শুটিং আর সস্তা কাহিনী নিয়ে তৈরি হচ্ছে এখনকার নাটক। যার কারণে দেশীয় নাটক এখন অনেকটাই দর্শক হারাচ্ছে। যেসব দর্শক আগে আমাদের নাটক দেখতো, তারা এখন জি বাংলা, স্টার জলসা এসব চ্যানেল দেখছে। নাটকের পাশাপাশি আপনাকে মাঝে মাঝে শর্টফিল্মে অভিনয় করতে দেখা যায়। এ মাধ্যমটিতে আপনার আগ্রহ কেমন? তৌসিফ বলেন, বরাবরই আমার শর্টফিল্মের প্রতি আগ্রহ রয়েছে। আমি প্রথম শর্টফিল্মে অভিনয় করেছি ২০১৩ সালে। ‘ফেরা’ নামের সে শর্টফিল্মটি বানানো হয়েছিল ইউটিউবের জন্য। তবে ২০১৫ সালে শর্টফিল্ম ‘দেয়াল’-এ অভিনয় করে আমি এক মিলিয়ন ভিউয়ার্স পেয়েছি। বলতে গলে আমি শর্টফিল্ম করেও বেশ সার্থক। সিনেমার প্রস্তুতি কেমন হচ্ছে? তৌসিফ বলেন, নাম প্রকাশ করবো না, তবে একজন পরিচালক আমাকে সিনেমার ব্যাপারে বেশ নক করেছেন। স্ক্রিপ্টও দিয়েছেন। কিন্তু এই টাইপ সিনেমা বাংলাদেশে বানানো না হলেও এ ধরনের নাটকে আমি কাজ করেছি। তাই সিনেমাটি করছি না। তবে হ্যাঁ, ব্যাটে-বলে মিলে গেলে আর ভালো কোনো চরিত্রে সুযোগ পেলে আমি অবশ্যই সিনেমা করবো। গত বছর শোনা গেছে আপনি বিয়ে করবেন ২০১৭ সালে। তার কি হলো? তৌসিফ হেসে বলেন, আপনি জানেন আমি একজনকে ভালোবাসি। আরো ৫ মাস বাকি আছে বছর শেষ হতে। দেখা যাক, ভাগ্যের উপরে ছেড়ে দিয়েছি। ভাগ্য ভালো থাকলে এই বছরের শেষ দিকেই তাকে ঘরে তুলে আনবো।