সাগর হত্যার প্রধান আসামি কাইয়ুম গ্রেপ্তার

21

ময়মনসিংহের গৌরীপুরে বিদ্যুতের কুটিতে বেধে কিশোর সাগর হত্যার মুল হোতা আসামি আবদুল কাইয়ুমকে (২২) পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে।  রাতভর অভিযান চালিয়ে আজ বুধবার ভোরে ময়মনসিংহ সদরের চরঈশ্বরদিয়া থেকে তাকে গ্রেফতার করে । গ্রেপ্তারকৃত কাইয়ুম ফুলপুর উপজেলার বাতুয়াদি গ্রামের আঃ হেকিমের পুত্র।  গ্রেপ্তারের পর পুলিশের কাছে কাইয়ুম সাগর হত্যার লোমহর্ষক বিবরণ দিয়েছে। আজ বুধবার দুপুরে ময়মনসিংহ পুলিশ সুপারের সম্মেলন কক্ষে পুলিশ  সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান।
এর আগে ২৯ সেপ্টেম্বর র‌্যাব-১৪ এর সদস্যরা নির্দেশদাতা আক্কাস আলী (৪০) আটক করে। গত ২৭শে সেপ্টেম্বর আসামি রিয়াজ উদ্দিন খা (৫০) ও  ২৮ সেপ্টেম্বর আসামি ফজলুর রহমান ফজলু (৫২) পুলিশ গ্রেপ্তার করে। মামলার মোট ৪জন আসামিকেই গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়েছে।  গ্রেপ্তারদের আদালতে হাজির করলে আসামি স্বেচ্ছায় স্বীকারোক্তিমুলক জবাববন্দি প্রদান করে।
উল্লেখ্য জেলার গৌরীপুর উপজেলার চরশ্রীরামপুর গ্রামের আক্কাস আলীর মালিকানাধীন গাউছিয়া হ্যাচারির পাম্প চুরির অভিযোগে গত ২৫শে সেপ্টেম্বর সাগরকে (১৬) পিটিয়ে হত্যা করা হয়। এ ঘটনায় পরদিন ২৬শে সেপ্টেম্বর সাগরের বাবা শিপন মিয়া বাদী হয়ে গৌরীপুর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।
এদিকে নির্মম নির্যাতনে নিহত সাগরের পরিবারকে নগদ ১০ হাজার টাকা, ৩০ কেজি চাল, ২০ কেজি আটা, ১০ কেজি ডাল, ১০ কেজি তৈল এবং নতুন জামা-কাপড় প্রদান করেন জেলা পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম। বৃহস্পতিবার রাতে জেলা পুলিশ সুপার কার্যালয়ে নিহত সাগরের বাবা শিপন মিয়া, মামা ও মায়ের কাছে এসব তুলে দেয়া হয়। এ সময় ময়মনসিংহের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নূরে আলম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার এস,এ নেওয়াজী, মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা এসআই পরিমল  উপস্থিত ছিলেন।
[এমকে]

 

 

 

 

 

সূত্র : মানবজমিন অনলাইন পত্রিকা