কলেজ ছাত্রীকে মারপিট করায় গ্রেপ্তার ছাত্রলীগ নেতা বহিস্কার

36

উত্ত্যক্তের প্রতিবাদ করায় সিরাজগঞ্জ সরকারী কলেজের এক ছাত্রীকে মারপিটের অভিযোগে গ্রেপ্তার ছাত্রলীগ নেতা সাদ্দাম হোসেনকে দল থেকে বহিস্কার করা হয়েছে। বুধবার রাতে দল থেকে তাকে বহিস্কার করা হয়। একই সঙ্গে কলেজের পক্ষ থেকে তার বিরুদ্ধে থানায় করা হয়েছে। এ বিষয়ে সিরাজগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক একরামুল হক জানান, ঘটনাটি জানার পর ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি গতকাল রাতেই তাকে দল থেকে বহিস্কার করেছে। এ সংক্রান্ত আদেশের কপি অনলাইনের মাধ্যমে রাতেই হাতে পেয়েছি। এদিকে কলেজের ভাইস প্রিন্সিপাল গোলাম মোস্তফা বাদী হয়ে গত রাতে থানায় মামলা করেছেন বলে সদর থানার ওসি হেলাল উদ্দিন জানিয়েছেন।

ওসি আরও বলেন, মামলায় সাদ্দামসহ তার আরেক সহযোগী শহরের আমলাপাড়ার সজলকেও আসামী করা হয়েছে। তাকে গ্রেপ্তারে চেষ্টা চলছে। আর গ্রেপ্তার সাদ্দামকে দুপুরের মধ্যে আদালতে পাঠানো হবে। উল্লেখ্য, মঙ্গলবার দুপুরে সরকারি কলেজের এক ছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করে বখাটে সাদ্দাম। এ নিয়ে মেয়েটি প্রতিবাদ করলে সাদ্দাম তাকে কিল-ঘুষি মেরে পালিয়ে যায়।

এ ঘটনার শিক্ষার্থীরা কিছু সময় কলেজের সামনে বিক্ষোভ করে। এরপর বিকালে সাদ্দামকে আটক করে পুলিশ। সাদ্দাম আগেও কলেজের বেশ কয়েকজন ছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করেছিল। এ নিয়ে সালিশও হয়েছিল বলে জানিয়েছে কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি শেখ খলিদ সাইফুল্লাহ সাদি। সাদ্দাম সিরাজগঞ্জ সরকারি কলেজ সংলগ্ন দত্তবাড়ি মহল্লার আব্দুল মজিদের ছেলে এবং সদর থানা ছাত্রলীগের উপ প্রচার সম্পাদক ছিলেন।